খাগড়াছড়িতে ফুলেল শুভেচ্ছায় সিক্ত হলেন বিদায় ও নবাগত জেলা প্রশাসক

snapshot-03

আল-মামুন,খাগড়াছড়ি: খাগড়াছড়ি বিদায় জেলা প্রশাসক মুহাম্মদ ওয়াহিদুজ্জামান ও নবাগত জেলা প্রশাসক মো: রাশেদুল ইসলামকে বর্ণাঢ্য সংবর্ধনা দিয়েছে খাগড়াছড়ি পৌরসভা। বৃহস্পতিবার রাতে পৌর মেয়র রফিকুল আলমসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ফুলেল শুভেচ্ছায় সিক্ত হন তারা।

এ সময় সংবর্ধনায় অংশ নেন, খাগড়াছড়ি জেলা প্রশাসনের এডিসি,অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট মো: আবুল আমিন, খাগড়াছড়ি বাজার ব্যবসায়ী সমিতির নেতা লেয়াকত আলী,ঠিকাদার কল্যাণ সমিতির সদস্য সচিব দিদারুল আলম দিদার,খাগড়াছড়ি সড়ক পরিবহণ বাস মালিক গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক এসএম সফি,কাঠ ব্যবসায়ী সমিতির নেতা আবু তৈয়ব, চেম্বার অব কমার্সের নেতা সুর্দশন দত্ত প্রমূখ।

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে পূর্বে পৌর মেয়র রফিকুল আলম নবাগত ও বিদায়ী জেলা প্রশাসকদের পৌর সভার বিভিন্ন সেকশন গুড়ে দেখান এবং পরিকল্পনা ও উন্নয়নের বিষয়ে তুলে ধরেন। পরে পৌর সম্মেলন কক্ষে বর্ণাঢ্য আয়োজনের মধ্য দিয়ে খাগড়াছড়ি পৌর সভা, ঠিকাদার কল্যাণ সমিতি, কাঠ ব্যবসায়ী সমিতি, বাজার ব্যবসায়ী সমিতিসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান নবাগত ও বিদায়ী জেলা প্রশাসককে ফুল দিয়ে সংবর্ধনা জানান।

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বিদায়ী জেলা প্রশাসক মুহাম্মদ ওয়াহিদুজ্জামান বিগত দিনের স্মৃতি চারন করে বলেন, প্রশাসনিক ভাবে শান্তি রক্ষাসহ দেশ ও জন মানুষের চলমান উন্নয়নে কাজ করে গেছে জেলা প্রশাসক। পাশাপাশি সকলের পাশে থেকে আন্তরিক সহযোগিতার বিনিময়ের ফলে এ জেলার শান্তি প্রতিষ্ঠায় সব সময় পৌর সভাকে পাশে পেয়েছেন। এ জন্য তিনি পৌর মেয়রকে ধন্যবাদ জানিয়ে আগামী দিনগুলোতে নবাগত জেলা প্রশাসকেও একই ভাবে সহযোগিতা হাত বাড়াবেন বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। এ সময় তিনি খাগড়াছড়ি জেলা এ পৌর সভার অবদান ও কার্যক্রমের প্রশংসা করেন।
নবগত জেলা প্রশাসক মো: রাশেদুল ইসলাম বলেন, এ জেলা মান বর্তমানে দেশবাসীর কাছে অনেকগুন বৃদ্ধি পেয়েছে। বেড়েছে নাগরিক সুযোগ-সুবিধাসহ উন্নয়ন অগ্রগতি। ফলে শান্তি বজায় রেখে দেশ ও জনগনের উন্নয়নে সকলে এক হয়ে কাজ করলে সরকারের অগ্রযাত্রায় এ জেলা আরো এগিয়ে যাবে বলে তিনি মন্তব্য করেন।

এ সময় মেয়র রফিকুল আলম খাগড়াছড়ি পৌরবাসীসহ জেলা প্রশাসনের সহযোগিতা ও আন্তরিকতার জন্য ধন্যবাদ জানিয়ে আগামী দিনে সব সময় পাশে থাকার প্রতিশ্রুতি দেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *