গুইমারায় ৪ দোকানে দুর্ধষ চুরি

 18056649_296253354129694_6137775180648611937_n17990707_296253317463031_8206376494133302272_n18058079_296253287463034_2899705388348146303_n

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ খাগড়াছড়ি জেলার গুইমারা বাজারের প্রধান সড়কের পুলিশ বক্সের পাশে ৪টি দোকানে দুর্ধষ চুরির ঘটনা ঘটেছে। মঙ্গলবার গভীর রাতে এ ঘটনা ঘটে।
ব্যবসায়ীরা জানান, মঙ্গলবার হাটের দিন থাকায় সারাদিন ব্যস্ততার পর রাতে সকলে প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে চলে যাওয়ার পর রাতেই রাজন পালের কাপড় দোকান, জাহাঙ্গীরের ইলেক্টনিক্স দোকান, মাষ্টার ট্রেডার্স ফোরকানুল হক সাকিবের দোকান ও পুলিশ বক্স ঘেসা সোহাগের ফল দোকানে দুর্ধষ চুরির ঘটনা ঘটে। এতে মালামাল, নগদ অর্থসহ প্রায় লক্ষাদিক টাকার ক্ষয়-ক্ষতি হয়েছে বলে প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে। রাত্রে বাজার পাহারাদার হিসেবে কর্মকর্তা ছিলেন ভিডিপি রফিকুল ও মজনু নামে দুই ব্যক্তি। চুরির ঘটনার সাথে এরা জড়িত কিনা এই নিয়ে নানান প্রশ্ন দেখা দিয়েছে।
স্থানীয়রা ধারণা করেছে চুরির সাথে জড়িতরা রাতের যে কোন এক সময় সংঙ্গবদ্ধ ভাবেই এ ঘটনার ঘটিয়েছে। কারণ দু, এক জনের পক্ষে একই রাতে ৪ দোকান চুরির বিষয়টি অসম্ভব। এ ঘটনার জন্য স্থানীয় ব্যবসায়ীরা নাইট গার্ড এর সংশ্লিষ্টতা থাকতে পারে বলে সন্দেহ করছে। ব্যবসায়ীরা দ্রুত এ ঘটনার সাথে জড়িতদের খুঁজে বের করে দৃষ্টান্তমুলক শাস্তির দাবী জানান।
গুইমারা বাজারে চুরির সংক্রান্ত নিয়ে গুইমারা থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ জুবায়ের হক জানান আমি ৪ টি দোকান চুরির ঘটনা জেনে ঘটনাস্থ পরিদর্শন করেছি। রাজনের কাপড়ে দোকান থেকে তেমন মালামাল নেয়নি। জাহাঙ্গীরের দোকানটি পিছনে টিনের ভেড়া নড়ভরে পাকা কোন ওয়াল ছিল না। সাকিবে দোকানটি বিল্ডিং ঘর ছিল বিল্ডিং এর পিছন থেকে ভেঙ্গে দোকান থেকে টাকা নিয়েছে বলে মোখিক অভিযোগ পেয়েছি।পুলিশ বক্সের সংলগ্ন সোহাগের ফলের দোকানের বাহিরে কেসের টাকা থাকবে পুরাটায় রহস্যজনক বলে মনে হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিবো।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *