আলোচিত বাংলাদেশ পার্বত্য চট্টগ্রাম ব্রেকিং নিউজ রাজনীতি

সিন্দুকছড়িতে আ:লীগ অফিস ভাংচুরের দায়ে কথিত সাংবাদিকসহ গ্রেফতার-৪

নিজস্ব প্রতিবেদক,গুইমারা:: খাগড়াছড়ির গুইমারা উপজেলার সিন্দুকছড়ি ইউনিয়নে গত মঙ্গলবার রাত সাড়ে আটটায় ভুয়া সাংবাদিক সহ ৩৫ জন দুবৃর্ত্ত আওয়ামীলীগ অফিস ভাংচুর চালানোর অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় ৪ জনকে পুলিশ আটক করেছে।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, সিন্দুকছড়ি ইউনিয়নের ছাত্রদল কর্মী ও কথিত “মানবজমিন” সাংবাদিক পরিচয় দানকারী মেহেদি হাসানের নেতৃত্বে একদল দুর্বৃত্ত নিজেদের এলাকায় প্রভাব বিস্তার করার লক্ষে আওয়ামীলীগ অফিসে ভাংচুর চালায়।

এ ঘটনায় সিন্দুকছড়ি ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা ও গুইমারা উপজেলা আওয়ামীলীগ সদস্য মহব্বত আলী বাদী হয়ে বিশ জন সহ অজ্ঞাত নামা আরো পনের জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করলে পুলিশ, ভুয়া সাংবাদিক ও ছাত্রদলকর্মী মেহেদি হাসান, মো:রবিউল ইসলাম, মো:শরিফুল ইসলাম, মো:মাঈন উদ্দিনকে গ্রেফতার করে বুধবার বিকেলে কোর্টে চালান করে পুলিশ।

সিন্দুকছড়ি আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা মহব্বত আলী বলেন, সিন্দুকছড়ির ইতিহাসে সন্ত্রাসীরা এক ন্যাক্কারজনক ঘটনার জন্ম দিয়েছে। তারা পুর্বপরিকল্পিতভাবে এ হামলা করে। আমাদের অনেক নেতাকর্মী এ ঘটনায় আহত হয়েছে। আমি এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত ও বিচার চাই।

গুইমারা উপজেলা বিএনপির সভাপতি মো:ইউচুপ বলেন, ওইদিন রাত্রে একটি ক্লাব সংক্রান্ত বিষয়ে সালিশী বিচারে বসে। পরে কে বা কারা হামলার ঘটনা ঘটিয়েছে সে আমাদের জানা নাই। তবে এতে ছাত্রদলের লোকজন জড়িত নয়। দলীয় ভাবে হয়রানীর উদ্দেশ্যে তাদের বিরুদ্ধে মামলা এবং গ্রেফতার করা হয় বলে বলেন আমরা আইনি পক্রিয়ায় হয়রানীর মোকাবিলা করব।

এ বিষয়ে গুইমারা থানার অফিসার্চ ইনচার্জ মুহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন বলেন, সন্ত্রাসী কর্মকান্ড যেই ঘটিয়ে থাকুক আইনের আওতায় তার বিচার হবেই। ভাংচুরের ঘটনায় চারজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে এবং বাকিদেরকে ও গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *