সিন্দুকছড়ি শাসনাস্মৃতি বৌদ্ধ বিহারে কঠিন চীবরদানোৎসব

নিজস্ব প্রতিবেদক,গুইমারা:: খাগড়াছড়ি গুইমারা উপজেলার সিন্দুকছড়ি ইউনিয়নের বাজার পাড়া শাসনাস্মৃতি বৌদ্ধ বিহারে কঠিন চীবরদানোৎসব বুধবার সকাল থেকে শুরু হয়েছে। ধর্মীয় উপসনা,দেসনাসহ ধর্মীয় নীতি অনুসরণ করে এ কঠিন চীবরদানোৎসব উদযাপন করা হয়েছে।

অধ্যক্ষ ক্ষেমাসারা মহাথের র সঞ্চালনায় গুইমারা ডিপিপাড়া থৈইফ্যামুনি বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ, সুরিয়েনটা মহাথের ধর্মদেশনা করেন,পঞ্চলশীলা প্রদান করেন,তবলছড়ি বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ, সুরিয়া মাহাথের,বিশ্ব শান্তি বৌদ্ধ বিহার অধ্যক্ষ,চাইন্দা সুরিয়া সহ বিভিন্ন বিহার থেকে আগত বৌদ্ধ ভিক্ষু ও দায়ক দায়িকাগন।

প্রবারণা পূর্ণিমা পালনের পর থেকে বৌদ্ধ র্ধমালম্বীদের মাস ব্যাপী কঠিন চীবরদানোৎসব শুরু হয়। আশ্বিনী পূর্ণিমা থেকে পরবর্তী পূর্ণিমা পর্যন্ত মাস ব্যাপী কোন না কোন বৌদ্ধ বিহারে পালন করা হবে এ কঠিন চীবর দানোৎসব। এই কঠিন চীবর দান ভগবান গৌতম বুদ্ধের সময় বিশাখা প্রর্বতন করেন।

মূলত: বিহার অধ্যক্ষকে চব্বিশ ঘন্টার মধ্যে তুলা থেকে সুতা তৈরি করে, সেই সুতা রং করে কাপড় বানিয়ে চীবর সেলাই করে বৌদ্ধ ভিক্ষুদের দান করতে হয়।এটি অত্যন্ত কঠিন কাজ বলে একে কঠিন চীবর দান বলে।বুদ্ধ ধর্ম মতে এ দানের ফল অপরিসীম। সুমেরু পর্বত ক্ষয়ে যেতে পারে সমুদ্র শুকিয়ে যেতে পারে কিন্তু এ দানের ফল শেষ হবেনা না। এই জন্য এ কঠিন চীবর দান বৌদ্ধ র্ধমালম্বীদের কাছে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *