রামগড় থলিবাড়ি এলাকায় প্রতিবন্ধী এক মেয়েকে ধর্ষণের অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক :: খাগড়াছড়ি জেলা রামগড় উপজেলার থলিবাড়ি এলাকায় মোহাম্মদ ইলিয়াছ-এর বুদ্ধি প্রতিবন্ধী এক মেয়ে (২২)’কে সামছুল হক টুকু নামক এক ব্যক্তি ধর্ষণ করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনায় মেয়ের বাবা মোহাম্মদ ইলিয়াছ বাদী হয়ে বিজ্ঞ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল, খাগড়াছড়ি’তে সামছুল হক টুকু’সহ তিনজনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন।

মামলাটির বাদী মোহাম্মদ ইলিয়াছ সূত্রে জানা যায়, গত ০৯ সেপ্টেম্বর’২০২০ মেয়েসহ স্বশরীরে আদালতে হাজির হয়ে মামলা দায়ের করলে, মামলাটি তদন্ত সাপেক্ষে রামগড় থানাকে একটি প্রতিবেদন দেওয়ার জন্য নির্দেশ দেন।

মেয়ের মা বলেন, জন্মগতভাবেই তাঁর মেয়ে বুদ্ধি প্রতিবন্ধী। নিজের ভালোমন্দ বুঝে না। হঠাৎ মেয়ের শারিরীক অবস্থার পরিবর্তন ও নিয়মিত অসুস্থ থাকায় সন্দেহবশত গুইমারা মেডিকেল সেন্টারে প্রেগন্যান্সী টেস্ট করানো হয়।

প্রেগন্যান্সী টেস্ট পরীক্ষায় রিপোর্ট পজেটিভ জানতে পেরে, মেয়েকে জিজ্ঞেস করলে সে জানায়, সম্প্রতি সামছুল হক টুকু’র দ্বারা ধর্ষণের স্বীকার মেয়েটি গরু নিয়ে জঙ্গলে গেলে প্রতিবেশী টুকু মেয়েটিকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে এবং কাউকে কিছু না বলার জন্য বলে। কাউকে বললে জানে মেরে ফেলার হুমকি দেয় বলে মেয়ে নিজের বক্তব্যে উঠে আসে। তবে মেয়েটি ঘটনার দিন-তারিখ সঠিক বলতে না পারলেও ৪-৫ মাস আগে ধর্ষণের স্বীকার হয় বলে প্রতিবেশিকে বলে।

এ ব্যাপারে মেয়েটির বাবা স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের কাছে বিচার চাইলে, বিচার না পেয়ে বাদী মোহাম্মদ ইলিয়াছ আদালতে মামলা করে।

এ বিষয়ে থলিবাড়ি সমাজ কমিটির সভাপতি ফজল হক ভূইয়া জানান, বিষয়টি গত ০৮ সেপ্টেম্বর’২০২০ -এ আমাকে জানানো হয়েছে। কিন্তু কোন সিদ্ধান্ত না দেয়ার আগে পরেরদিনই আদালতে মামলা দায়ের করেছে মেয়েটির বাবা।

আদালত থেকে তদন্তের জন্য প্রেরিত রামগড় থানার অফিসার ইনচার্জের নিকট আসা মামলাটি তদন্তের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শাহজাহান জানান, ইতিপূর্বে রামগড় উপজেলার থলিবাড়ী এলাকায় ধর্ষণের ঘটনায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল, খাগড়াছড়ি’তে দায়েরকৃত মামলাটির তদন্ত চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *