নাঈম আশরাফের সেলফিতে বিব্রত বিয়ের কথা সামনে আনলেন চিত্রনায়িকা

15585518556344_305591139884686_1718606896911428682_nঅন্য মিডিয়া: সম্প্রতি বনানী ধর্ষণকাণ্ডে অভিযুক্ত নাঈম আশরাফের সাথে দেশের সবশ্রেণির তারকাদের সেলফি আলোচনায় আসে। এহেনকাণ্ডে অনেকেই বিব্রত অবস্থায় পড়েন। বাদ যাননি নবাগতা চিত্রনায়িকা তানহা মৌমাছি। নাঈম আশরাফের সাথে নিজের ‘অজ্ঞাতে’ সেলফি তুলে বিব্রতকর অবস্থায় পড়েন তানহা। আর তাতেই ‘বাধ্য’ হলেন নিজের বিবাহিত জীবনের কথা সোশ্যাল মিডিয়ায় নিয়ে আসতে।

তানহা ফেসবুকে লিখেছেন, ‘কেউ আমায় নিয়ে আর কখনো খারাপ মন্তব্য করতে পারবে না। আজকে সবাইকে জানাচ্ছি, আমি বিয়ে করেছি তিন বছর আগে। ৭ বছরের সম্পর্কের পর এই বিয়ে। আমার স্বামীর নাম মুক্ত। বিয়ে,জন্ম,মৃত্যু আল্লাহ নিজের হাতে লিখে রাখেন। আমি আমারে স্বামীকে অনেক ভালোবাসি, সবাই দোয়া করবেন। মানুষ আমায় খারাপ বলুক এটা চাই না। আমি জামাই নিয়ে সারাজীবন ভালো থাকতে চাই।

তানহা মৌমাছি কালের কণ্ঠকে বলেন, আসলে আমি বিব্রতকর অবস্থায় পড়ে গেছি এই সেলফির জন্য। তাই আমার বিবাহিত জীবনের কথা ভক্তদের সামনে নিয়ে এলাম। নাঈম আশরাফের সাথে সেলফির কারণে মানুষ আমাকে নানাকিছু ভাবতে পারে। এজন্য আমি নিজেই আমার স্বামীর ছবিসহ আমার প্রেম ও বিয়ের কথা বিস্তারিত জানিয়েছি।

তানহা মৌমাছির গ্রামের বাড়ি জয়পুরহাট জেলার পাঁচবিবি উপজেলায়। অনেক দামে কেনা, যে গল্পে ভালোবাসা নেইসহ চারটি ছবিতে অভিনয় করেছেন তানহা। স্বামী মুক্তর নিজের বড় ব্যবসা রয়েছে। তার গ্রামের বাড়ি মুন্সীগঞ্জ। তানহা স্বামীর সাথে ঢাকার মিরপুর ডিওএইক্সচএসে থাকেন।

তানহা কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘আসলে নাঈম আশরাফের সাথে ছবি তোলার পর মানুষজন নানা কথা বলছিল। অথচ আমার স্বামী একজন ব্যাবসায়ী আমি তার টাকা দিয়েই সিনেমা করেছি। আমার স্বামী মুক্ত সিনেমায় প্রযোজনা করেছেন। তাই ভাবলাম মানুষের কটূ কথা বলার আগেই আমি বিষয়টি ভক্তদের জানিয়ে দেই। ‘

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *