চোর ধাওয়া করতে গিয়ে প্রাঁণ গেলে ২ যুবকের

আল-মামুন:: খাগড়াছড়ির মানিকছড়ি উপজেলার আমতল এলাকায় দ্রুতগামী মিনিবাসের ধাক্কায় মো: মহিদুল ইসলাম (৩৬) ও মো: আরিফ হোসেন (৩০) নামে দুই যুবক নিহত হয়েছে। এ সময় গুরুত্বর আহত হয় মো: জামাল হোসেন (২৫) নামের আরো এক যুবক।

মঙ্গলবার ভোররাত ৪টার দিকে এ ঘটনা  ঘটে। সোমবার গভীর রাতে রামগড় উপজেলার তৈচালা এলাকা থেকে সংঘবদ্ধ গরু চোর চক্র ৪টি গরু নিয়ে পালানোর সময় খবর পেয়ে মিনি বাসটিকে ধাওয়া করতে গিয়ে এই  হতাহতের ঘটনা ঘটে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে, মানিকছড়ি থানার অফিসার ইনচার্জ মাঈন উদ্দিন খাঁন (ওসি) মাঈন উদ্দিন খান জানান, দ্রুতগামী বাসের চাপায় মহিদুল ইসলাম ও মো: আরিফ নামে দু’জন নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় ঘটনাস্থলে গুরুত্বর আহত হয়েছে জামাল উদ্দিন ও গাড়ীটানায়  ব্যারিকেট দিলে মিল্টন খান নামে দু’জন আহত হয়েছে।

তাদের মধ্যে জামাল উদ্দিনকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। নিহতদের বাড়ি গুইমারা উপজেলার জালিয়াপাড়া এলাকায়।
 
স্থানীয় সূত্র জানায়, রামগড়ের তৈচালা এলাকা থেকে চুরি করা গরু নিয়ে চট্টগ্রাম সড়ক দিয়ে যাওয়ার পথে বেপোরোয়া গতির মিনি সিটি সার্ভিস বাসকে আটকাতে ধাওয়া করে জালিয়াপাড়ার আরিফ হোসেন,মহিদুল ইসলাম ও জামাল হোসেন। তারা জালিয়াপাড়া থেকে বাসের পিছু নিয়ে মানিকছড়ি রানী নিহার দেবী উচ্চ বিদ্যালয়ে গেইটের সামনে গেলে সেখানে দ্রুতগামী গাড়ীটি চাপা দেয়।

এ সময় ২ জন নিহত ও অপর জন গুরুত্বর আহত হয়। এছাড়াও (চট্টগ্রাম-খাগড়াছড়ি সড়ক) একাধিক স্থানে তাদের ব্যারিকেট দেওয়া হলেও তাদের আটক করা সম্ভব হয়নি বলে জানা যায়।

মানিকছড়ি থানার অফিসার ইনচার্জ মাঈন উদ্দীন খাঁন আরো জানান, মানিকছড়ি থানা পুলিশ ঘটনার ১০মিনিট পর ঘটনাস্থলে এসে প্রথমে আহতদের মানিকছড়ি হাসপাতালে নিলে চিকিৎসকরা দু’জনকে মৃত্যু ঘোষণা করে এবং অপর জনকে চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করেন। লাশ দু’টি সূরতহাল সম্পন্ন হয়েছে এবং দুমড়ে-মুচড়ে যাওয়া মোটরসাইকেলটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

এদিকে নিহত ও আহতদের আত্মীয়-স্বজনরা হাসপাতালে ছুঁটে গেলে নিহত আরিফ ও মহিদ এর স্বজনদের কান্নায় আশপাশের পরিবেশ ভারি হয়ে উঠে।
বেপরোয়া বাসটি আটকাতে পুলিশ ফটিকছড়ি থানা পুলিশকে অবহিত করলেও বাসটিকে আটকাতে পারেনি বলে জানা যায়। লাশ দু’টি ময়না তদন্তের জন্য খাগড়াছড়ি আধুনিক জেলা সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *