নানিয়ারচরে ইউপিডিএফের সহকারী পরিচালককে গুলি করে হত্যা

নুরুল আলম:: খাগড়াছড়ি জেলার সীমান্তবর্তী রাঙামাটির নানিয়ারচর উপজেলায় ইউপিডিএফ প্রসীত গ্রুপের সন্ত্রাসী সুবাহু চাকমা ওরফে গিরি(৫০) প্রতিপক্ষের গুলিতে নিহত হয়েছে। নিহত সুবাহু চাকমার হিতার নাম বীর মোহন চাকমা। সে স্থানীয় ১১ নং উল্যাপাড়ার বাসিন্দা। নিহত সুবাহু চাকমা স্থানীয় পর্যায়ে ইউপিডিএফের বিচার বিভাগের সহকারী পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছিলেন।
বুধবার (৪ডিসেম্বর) সকালে উপজেলার দূর্গম সাবেক্ষং ইউনিয়নের বড়পুল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় রমেশ চাকমা নামের তার এক সহকারী গুলিবিদ্ধ হয়েছে।
স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, বুধবার সকালে সাবেক্ষং ইউনিয়নের বড়পুল এলাকায় একটি গুলিবিদ্ধ মরদেহ দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেওয়া হয়। নিহত ব্যক্তির নাম গিরি চাকমা। তিনি ইউপিডিএফ প্রসীত গ্রুপের সশস্ত্র কর্মী হিসেবে এলাকায় পরিচিত। তিনি ওই এলাকার বাসিন্দা গোপাল চন্দ্র চাকমার ছেলে।
বুধবার সকালে উক্ত স্থানে মুখোশপড়া একদল পাহাড়ি সন্ত্রাসী অতর্কিতভাবে সশস্ত্র হামলা চালিয়ে ঘুমন্ত অবস্থায় গিরি ও রমেশের উপর গুলি বর্ষণ করে। এসময় রমেশ গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পালিয়ে যেতে পারলেও গিরি চাকমা ঘটনাস্থলেই নিহত হয়।
নানিয়ারচর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো.কবির হোসেন বলেন, স্থানীয়রা সাবেক্ষং ইউনিয়নের বড়পুল এলাকায় একটি মরদেহ দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ মরদেহটি উদ্ধারে ঘটনাস্থল গিয়ে কোনো লাশ পায়নি।
জানা গেছে, ঘটনাস্থলে তল্লাশী চালিয়ে পুলিশ প্রচুর রক্তের দাগ দেখতে পায়। ঘটনাস্থলের আশেপাশে এখনো পুলিশি তল্লাশী অব্যাহত রয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, পুৃলিশ যাওয়ার আগেই সন্ত্রাসীরা তার লাশ সরিয়ে ফেলতে পারে।
তবে এ ব্যাপারে ইউপিডিএফের তরফ থেকে এখনো কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *